,

পাসের হারের সাথে শিক্ষার মান বাড়ানো প্রয়োজন

এইচএসসি পরীক্ষায় যারা উত্তীর্ণ হয়েছে, তাদের সবাইকে অভিনন্দন। এবারে পাসের হার বেড়েছে সেটি আনন্দের খবর। তবে ফলাফলে কিছু অসংগতিও লক্ষ করা গেছে। অন্যান্য বোর্ডে পাসের হার গত বছরের কাছাকাছি থাকলেও যশোর বোর্ডে বেড়েছে প্রায় ৩৭ শতাংশ।

যারা সাফল্যের সাথে পাস করেছে তাঁরা সহ তাঁদের বাবা-মা, পরিবার পরিজন সবাই অতি আনন্দিত। সব বাবা-মায়ের আকাক্সক্ষা থাকে তাঁদের সন্তান যেন পরীক্ষায় পাস করে। এবার বোধ করি অধিকাংশ শিক্ষার্থীই তাঁদের বাবা-মায়ের সেই আকাক্সক্ষা পূরণ করেছে। এখন প্রশ্ন হচ্ছে পাসের হার তো বেড়েছে, শিক্ষার মান কি সেভাবে বেড়েছে?
অনেকেই এটাকে রাজনৈতিক পাসের হার হিসেবে মন্তব্য করছেন। যদি সত্যি সত্যি রাজনৈতিক বিবেচনায় পাসের হার বৃদ্ধি করা হয়ে থাকে তাহলে সেটি হবে আমাদের জাতির জন্যে ভয়ানক।

ফল-বিপর্যয় বা উল্লম্ফল কোনোটাই স্বাভাবিক নয়। তবে বিজ্ঞান, ইংরেজির পাশাপাশি তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিষয়ে ভালো ফল আশাব্যঞ্জক। প্রতিবছর এসএসসি ও এইচএসসিতে শিক্ষার্থীদের সংখ্যা বাড়লেও মানসম্পন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, মেধাবী শিক্ষক ও প্রয়োজনীয় শিক্ষা-উপকরণের জোগান দিতে না পারা সার্বিকভাবে শিক্ষার অবনতিরই নির্দেশক। মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক অধিকাংশ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের অবস্থা যখন ‘সাধ আছে সাধ্য নেই’ পর্যায়ে, তখন মানসম্পন্ন শিক্ষাদান কঠিন। পাসের হার বাড়লেই মান বাড়ে না।

অনেকেই এবারে এইচএসসিতে পাসের হার বৃদ্ধির কারণ হিসেবে রাজনৈতিক স্থিতিশীল পরিবেশের কথা বলেছেন। ভবিষ্যতেও এটি ধরে রাখতে হবে। সেই সঙ্গে শ্রেণিকক্ষে শিক্ষার্থীদের নিয়মিত পাঠদান ও প্রয়োজনীয় শিক্ষা-উপকরণ সরবরাহ করা গেলে কোচিংয়ের প্রবণতা কমবে। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলোতে তদারকির কাজটি শিকেয় তুলে রেখে শুধু পরিপত্র জাপাসের হারের সাথে শিক্ষার মান বাড়ানো প্রয়োজন

এইচএসসি পরীক্ষায় যারা উত্তীর্ণ হয়েছে, তাদের সবাইকে অভিনন্দন। এবারে পাসের হার বেড়েছে সেটি আনন্দের খবর। তবে ফলাফলে কিছু অসংগতিও লক্ষ করা গেছে। অন্যান্য বোর্ডে পাসের হার গত বছরের কাছাকাছি থাকলেও যশোর বোর্ডে বেড়েছে প্রায় ৩৭ শতাংশ।

যারা সাফল্যের সাথে পাস করেছে তাঁরা সহ তাঁদের বাবা-মা, পরিবার পরিজন সবাই অতি আনন্দিত। সব বাবা-মায়ের আকাক্সক্ষা থাকে তাঁদের সন্তান যেন পরীক্ষায় পাস করে। এবার বোধ করি অধিকাংশ শিক্ষার্থীই তাঁদের বাবা-মায়ের সেই আকাক্সক্ষা পূরণ করেছে। এখন প্রশ্ন হচ্ছে পাসের হার তো বেড়েছে, শিক্ষার মান কি সেভাবে বেড়েছে?
অনেকেই এটাকে রাজনৈতিক পাসের হার হিসেবে মন্তব্য করছেন। যদি সত্যি সত্যি রাজনৈতিক বিবেচনায় পাসের হার বৃদ্ধি করা হয়ে থাকে তাহলে সেটি হবে আমাদের জাতির জন্যে ভয়ানক।

ফল-বিপর্যয় বা উল্লম্ফল কোনোটাই স্বাভাবিক নয়। তবে বিজ্ঞান, ইংরেজির পাশাপাশি তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিষয়ে ভালো ফল আশাব্যঞ্জক। প্রতিবছর এসএসসি ও এইচএসসিতে শিক্ষার্থীদের সংখ্যা বাড়লেও মানসম্পন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, মেধাবী শিক্ষক ও প্রয়োজনীয় শিক্ষা-উপকরণের জোগান দিতে না পারা সার্বিকভাবে শিক্ষার অবনতিরই নির্দেশক। মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক অধিকাংশ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের অবস্থা যখন ‘সাধ আছে সাধ্য নেই’ পর্যায়ে, তখন মানসম্পন্ন শিক্ষাদান কঠিন। পাসের হার বাড়লেই মান বাড়ে না।

অনেকেই এবারে এইচএসসিতে পাসের হার বৃদ্ধির কারণ হিসেবে রাজনৈতিক স্থিতিশীল পরিবেশের কথা বলেছেন। ভবিষ্যতেও এটি ধরে রাখতে হবে। সেই সঙ্গে শ্রেণিকক্ষে শিক্ষার্থীদের নিয়মিত পাঠদান ও প্রয়োজনীয় শিক্ষা-উপকরণ সরবরাহ করা গেলে কোচিংয়ের প্রবণতা কমবে। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলোতে তদারকির কাজটি শিকেয় তুলে রেখে শুধু পরিপত্র জারি করে কোচিং ব্যবসা বন্ধ করা যাবে না।

এই যে বিপুলসংখ্যক শিক্ষার্থী এইচএসসিতে উত্তীর্ণ হলো, তাদের জন্য উচ্চশিক্ষার দরজা কতটা খোলা আছে, বা খোলা রাখা প্রয়োজন সেটাও ভেবে দেখার বিষয়। একদিকে হাজার হাজার স্নাতক তৈরি হয়ে বেকার বসে থাকা, অপরদিকে চাহিদামাফিক দক্ষ জনশক্তির জোগান দিতে না পারা দ্বিমুখী জাতীয় ক্ষতি বলেই মনে করি। তাই উচ্চশিক্ষার বিষয়টিকে জাতীয় পরিকল্পনার অন্তর্ভূক্ত করার বিকল্প নেই।

এইচএসসিতে পাসের হার বাড়ায় সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা কিঞ্চিৎ আত্মসন্তুষ্টি লাভ করতে পারেন। কিন্তু যে ২৭ দশমিক ৫৩ শতাংশ শিক্ষার্থী অকৃতকার্য হলো, তাদের ভবিষ্যতের কথাও ভাবতে হবে। এটি কেবল ওই শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদেরই ক্ষতি নয়, রাষ্ট্র ও সমাজেরও বিরাট লোকসান। এই লোকসান যত দ্রুত এবং যত বেশি পরিমাণে কমিয়ে আনা যায়, ততই মঙ্গল।

রি করে কোচিং ব্যবসা বন্ধ করা যাবে না।

এই যে বিপুলসংখ্যক শিক্ষার্থী এইচএসসিতে উত্তীর্ণ হলো, তাদের জন্য উচ্চশিক্ষার দরজা কতটা খোলা আছে, বা খোলা রাখা প্রয়োজন সেটাও ভেবে দেখার বিষয়। একদিকে হাজার হাজার স্নাতক তৈরি হয়ে বেকার বসে থাকা, অপরদিকে চাহিদামাফিক দক্ষ জনশক্তির জোগান দিতে না পারা দ্বিমুখী জাতীয় ক্ষতি বলেই মনে করি। তাই উচ্চশিক্ষার বিষয়টিকে জাতীয় পরিকল্পনার অন্তর্ভূক্ত করার বিকল্প নেই।

এইচএসসিতে পাসের হার বাড়ায় সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা কিঞ্চিৎ আত্মসন্তুষ্টি লাভ করতে পারেন। কিন্তু যে ২৭ দশমিক ৫৩ শতাংশ শিক্ষার্থী অকৃতকার্য হলো, তাদের ভবিষ্যতের কথাও ভাবতে হবে। এটি কেবল ওই শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদেরই ক্ষতি নয়, রাষ্ট্র ও সমাজেরও বিরাট লোকসান। এই লোকসান যত দ্রুত এবং যত বেশি পরিমাণে কমিয়ে আনা যায়, ততই মঙ্গল।

সংবাদটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

সম্পাদক : কবীর আহমদ সোহেল

সম্পাদক কর্তৃক প্রগতি প্রিন্টিং এন্ড প্যাকেজিং লিঃ ১৪৯ আরামবাগ,ঢাকা থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত। বার্তা ও বাণিজ্যিক কাযালয়: ২০৭/১ ফকিরাপুল, আরামবাগ , মতিঝিল, ঢাকা-১০০০।

সিলেট অফিস: ২৩০ সুরমা টাওয়ার (৩য় তলা)
ভিআইপি রোড, তালতলা, সিলেট।
মোবাইল-০১৭১২-০৩৩৭১৫,০১৭১২-৫৯৩৬৫৩

E-mail: provatbela@gmail.com,

কপিরাইট : দৈনিক প্রভাতবেলা.কম

শিরোনাম :
সিলেটে ইয়াবাসহ যুবক আটক সিপিএল চ্যাম্পিয়ন ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্স ৩২ ধারা বহাল রেখে প্রতিবেদন জমা দিয়েছে সংসদীয় কমিটি বাহরাইনকে ১০-০ গোলে উড়িয়ে শুভসূচনা বাংলাদেশের রোহিঙ্গাদের সাহায্য করতে ঢাকাকে সমর্থন দেবে দিল্লিঃ শ্রিংলা ৯ম থেকে ১৩তম গ্রেডের চাকরিতে থাকছে না কোটা নির্বাচনের আগে বর্তমান সংসদ ভেঙে দেওয়াসহ ৫দফা দাবী উত্তরমুখী হয়ে লাভ নেই, ওখানে সাড়া দেওয়ার মতো কেউ নেই আইডিইবি সম্মেলন উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের শিরোপা জিতলো মালদ্বীপ জুড়ীতে বাংলাদেশের খবর’র বর্ষপূর্তি উদযাপন মেডিকেল বোর্ডে খালেদার ব্যক্তিগত চিকিৎসকদের রাখা হয়নি শনিবার যুক্তফ্রন্ট-ঐক্য প্রক্রিয়ার যৌথ ঘোষণা আসছে সারাদেশে পালন করা হবে শেখ হাসিনার জন্মদিন সমাজসেবী আমিন আলীর ইন্তেকাল এবার স্বরচিত কবিতা পাঠ করলেন জগলুল হায়দার যশোরে সাবেক ফুটবল কোচ ওয়াজেদ গাজীর দাফন সম্পন্ন মন্ত্রণালয়ের কাছেই বিদ্যুৎ বিল পাওনা ৬৬৮ কোটি টাকা! কাভার্ডভ্যান পোড়ানোর মামলায় খালেদার জামিন নামঞ্জুর চলে গেলেন নওয়াজ শরীফের স্ত্রী কুলসুম রাজধানীর ১৪ হাসপাতাল বন্ধের নির্দেশ মৌসুমী, অপু ও ওমরসানি দুবাই যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের জবাবে ড. কামাল সংবিধান অনুযায়ী ডিসেম্বরে নির্বাচন হবে `এ কথা শুনেই মান্না, জুড়ে দেয় কান্না।’ বিকল্পধারা এখন স্বকল্প হয়ে গেছে ‘তিনিও আনকনটেস্টের এমপি’ আমরা তোমাদের কাছে কৃতজ্ঞ: ডা. বদরুদ্দোজা নির্বাচন নাও হতে পারে: ড. কামাল যাঁকে র‌্যাঙ্ক দিতে বাধ্য হন পাক জেনারেল “ কোনোরকম বিশৃঙ্খলা সহ্য করা হবে না’- হাসিনা প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে আশাজাগানিয়া বিএনপি হবিগঞ্জে আপত্তিকর অবস্থায় দেবর-ভাবী আমার মৃত্যু, বর্ষাদিন বিরোধী দলীয় চিফ হুইপ তাজুল ইসলাম চৌধুরী আর নেই নেপালকে হারিয়ে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশের কিশোরীরা সমকাল সম্পাদক গোলাম সারওয়ার চলে গেলেন রাজুর হত্যাকারীদের ফাঁসির দাবিতে সিলেটে বিক্ষোভ মিছিল সরকার ‘সংলাপে’ বাধ্য হবেঃ মওদুদ আহমেদ মেয়রের বাসার সামনেই ছাত্রদলের হামলায় রাজু খুন আরিফ সিসিক মেয়র নির্বাচিত “দায়িত্বশীল নেতার অডিও রেকর্ড পুলিশের হাতে” বিএনপি-জামায়াত ইতিহাসকে বিকৃত করছেঃ তথ্যমন্ত্রী স্বচ্ছ মন নিয়ে আলোচনায় আসুনঃ রিজভী আহমেদ প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করলেন ছাত্রলীগ নেতৃবৃন্দ ফিন্যান্সিয়াল এক্সপ্রেস সম্পাদক মোয়াজ্জেম হোসেন আর নেই শনির আখড়ায় ট্রাকচাপায় আহত শিক্ষার্থী শঙ্কামুক্ত সিসিক’র স্থগিত ২কেন্দ্রের ভোট ১১ আগস্ট বৃহস্পতিবার সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাজশাহী ও বরিশালে নৌকা, সিলেটে আরিফ