,

আল হারমাইন হাসপাতালের বিরুদ্ধে জঘন্য প্রতারণার অভিযোগ

তোফায়েল সিপু। এক সম্ভাবনাময় তরুণ। ‘আল হারমাইন’ হাসপাতাল নামক প্রতিষ্ঠানটির জঘন্য প্রতারণার স্বীকার হয়েও দমে যাননি। সময়ের সাহসী এই সন্তান এখন ইউরোপের একটি দেশে। তাঁর ফেসবুক টাইমলাইনে জঘন্য এই প্রতারণার চিত্র তুলে ধরেন হৃদয়ের কষ্ট নিয়ে। যেন তার মত আর কেউ এমন প্রতারণায় না পড়েন। দৈনিক প্রভাতবেলা’র পক্ষ থেকে যোগাযোগ করা হয় তার সাথে। তিনি আরো অনেক তথ্য প্রদান করেন। যোগাযোগ করা হয় আল হারমাইন হাসপাতালে । হাসপাতালে কর্মরতরা তারা যে প্রতারণায় জড়িত নয় তা আচরণে প্রমান করতে পারেনি। প্রয়োজনের নিরিখে তোফায়েল শিপুর লিখাটিই হুবুহু প্রকাশ হল প্রভাতবেলায়। বিস্তারিত প্রতিবেদন আসছে। চোখ রাখুন আমাদের মুদ্রণ ও অনলাইন সংস্করণে।

২০১৬ সাল। সবে মাত্র অনার্স পাশ করেছি। রেজাল্ট ভালো হওয়ায় প্রত্যাশাও একটু বেশি ছিল। তবে সরকারি চাকরির প্রতি তেমন একটা আগ্রহ ছিল না। হঠাৎ আল হারামাইন হাসপাতালের একটা নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি পাই। তখন মার্চ কিংবা এপ্রিল মাস হবে হয়তো। বেশ কিছু নিয়োগ হবে। বেশ আশা নিয়েই আবেদন করলাম। কিন্তু দীর্ঘদিন কোনো সংবাদ পেলাম না। একসময় আশা হারিয়ে ফেললাম। ভাবলাম যোগ্যতায় হয়তো হয়নি। অক্টোবরের শেষের দিকে হঠাৎ হাসপাতাল কতৃপক্ষ ফোন কওে জানালেন ইন্টারভিউয়ের জন্য। আবারো আশার আলো দেখতে পেলাম। নির্দিষ্ট তারিখে দীর্ঘসময় অপেক্ষা করে ইন্টারভিউ দিলাম। কনফিডেন্ট ছিল চাকরি পাবো। সপ্তাহখানেক পরে অথ্যাৎ নভেম্বরে ফোন আসলো আমি চাকরির জন্য মনোনিত হয়েছি। মহান রবের দরবারে হাজারো শুকরিয়া জ্ঞাপন করলাম। নির্দিষ্ট দিনে হাসপাতালে গেলাম। প্রচুর লোকের সমাগম। সবার মুখেই হাসি। এদের সবাই চাকরির জন্য মনোনিত হয়েছে। একসময় আমার ডাক আসলো। ভিতরে গেলাম; বলা হলো ফেব্রুয়ারির ১ তারিখে চাকরিতে জয়েন করার কথা। জানুয়ারিতে যারা জয়েন করবে তাদের নিয়োগপত্র দেওয়া হলেও আমাদের বলা হলো জানুয়ারিতে ফোন দিয়ে নিয়োগপত্র নিতে বলা হবে।
এভাবে সময় যাচ্ছিল। চাকরিটা বেশ কয়েকটা কারণে আমার পছন্দ হলো। ভাবলাম বাসার পাশে চাকরি; মানুষের সেবা করার সুযোগ; স্বপ্নের একাউন্টিং নিয়ে কাজ। অপেক্ষার প্রহর কাটছিল না। জানুয়ারির ২৮ তারিখ আবারো ফোন আসলো। বেশ আশা নিয়ে ফোন রিসিভ করলাম। কিন্তু ওপাশে যা বললো তার জন্য মোটেই প্রস্তুত ছিলাম না। বললো মার্চের ১ তারিখ জয়েন হবে। নিরাশ হলেও শিওর হলাম আমার চাকরিটা নিশ্চিত। তখন সবাইকে বলি আমার চাকরির কথা। বাড়িতে বললে আব্বা আম্মা এলাকার সবাইকে আমার চাকরির কথা বলেন। ফেব্রুয়ারির ২৭ তারিখ আবারো ফোন। এবার আরো বড় দুঃসংবাদ। ফোন দিয়ে বলল তাদের কাজ এখনো বাকি আছে। কবে জয়েন করবো শিওর না। তারা ফোন দিয়ে জানাবে। আবারো হতাশ হয়ে পড়লাম। এই দীর্ঘসময়ে কোনো চাকরির জন্য আবেদন করিনি। একরকম হতাশায় পড়ে গেলাম। ফোন দিলাম আমার সাথে যারা জয়েন করার কথা তাদেরকে। তাদেরকেও একই কথা বলা হয়েছে। এদের মধ্যে একজন আমার বেশ পরিচিত বড় ভাই। ঐ চাকরির জন্য এখনো বেকার আছেন। আমিও দীর্ঘদিন ঐ চাকরির জন্য অপেক্ষা করেছি। বাড়িতে গেলে সবাই জিজ্ঞেস করতো। শেষ পর্যন্ত বাড়িতে যাওয়া কমিয়ে দিয়েছিলাম।
এখন বলি অন্য প্রসঙ্গে, আল হারামাইন হাসপাতালে চাকরি করেন এরকম একজন বড় ভাইয়ের সাথে কথা বলেছিলাম তিনি জানান, হাসপাতালে চাকরি না হয়ে নাকি আমার ভালো হয়েছে। বেশ অবাক হলাম! জানালেন, কিছু অভ্যন্তরিণ সমস্যার কথা। কতৃপক্ষের ইচ্ছাই এখানে সব। প্রতিনিয়ত মানুষের চাকরির স্থান পরিবর্তন হয়। ভাইস চেয়ারম্যানের ভালো না লাগলেই গালাগালি করেন। কর্মী ছাঁটাই নাকি ওখানকার নিত্যদিনের ব্যাপার। আমি বেশ অবাক হয়ে একটু খোঁজ নিলাম , যা শুনেছি তাই সত্যি।
এবার একটু ভিন্ন প্রসঙ্গে বলি। আমার খুব ঘনিষ্ট একজন হাসপাতালে চাকরির জন্য ওখানে চাকরি করে এরকম একজনের সাথে ২৫ হাজার টাকা চুক্তি করে। ৫ হাজার অগ্রীম দিতে হয়। সে নাকি ১০/১২ জনকে চাকরি দিয়েছে। ঐ চুক্তির সময় আমিও উপস্থিত ছিলাম। তবে এখনো ঐ মানুষটির চাকরি হয়নি।
গতমাসে আমার আরেকজন পরিচিত একটি পোস্টের জন্য আবেদ করে ইন্টারভিউ দিয়েছেন। উনাকে বলা হয়েছে ২/৩ দিনের মধ্যে জানানো হবে। আজ ১ সপ্তাহ হলেও কিছু জানানো হয়নি। তাদের বিরুদ্ধে প্রথম থেকে যে অভিযোগ পেয়েছি, পরিচিত বা লিংক ছাড়া কারো চাকরি হয় না ওখানে। হাসপাতালের ভাইস চেয়ারম্যান ওলিউর রহমানের ইচ্ছাই ওখানে সব। উনার পছন্দ না হলে পরদিনই ছাঁটাই। যদিও এ বিষয়গুলো দেখার জন্য হাসপাতালে এইচআরডি বিভাগ রয়েছে। এটা নামে মাত্র। এটি আসলে বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে নতুন কিছু নয়। তবে চাকরি হয়েছে বলে আমার মতো তরুণের জীবন নিয়ে চিনিমিনি খেলার পারমিশান তাদেরকে কেউ দেয়নি। এভাবে হয়তো কত তরুণ অপেক্ষার প্রহর গুনছে চাকরিতে জয়েন করার জন্য। তারা হয়তো আদৌ জানে না যে কখনোই তাদের চাকরি হবে না।
আরেকটি বিষয় খেয়াল করবেন নিয়মিতভাবে তাদের চাকরির নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হয়, এটাকে হয়তো তারা প্রচারের কৌশল হিসেবে ব্যবহার করছে। কিন্তু ইন্টারভিউ ও চাকরি দেওয়ার নাম করে অপেক্ষা করতে বলা বিষয়টা তো মেনে নেওয়া যায় না!
এখন প্রশ্ন হতে পারে কেন আমি এতো দিন পর এই বিষয়টি উত্তাপন করছি। যখন শুনলাম আমার পরিচিত ব্যক্তিটিও আমার মতো সমস্যার সম্মুখিন তাই বিষয়টি সবার সামনে আনার জন্যই মূলত বিষয়টি নিয়ে লিখলাম। মনের ভিতর জমে থাকা কষ্ট থেকেই এই লিখা। কেউ কষ্ট পেলে ক্ষমাপ্রার্থী। তবে জানামতো ১% ও মিথ্যার আশ্রয় নেইনি।

Tofael Shipu  টাইমলাইন থেকে।
0Shares

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক : কবীর আহমদ সোহেল

সম্পাদক কর্তৃক প্রগতি প্রিন্টিং এন্ড প্যাকেজিং লিঃ ১৪৯ আরামবাগ,ঢাকা থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত। বার্তা ও বাণিজ্যিক কাযালয়: ২০৭/১ ফকিরাপুল, আরামবাগ , মতিঝিল, ঢাকা-১০০০।

Designed by ওয়েব হোম বিডি

সিলেট অফিস: ২৩০ সুরমা টাওয়ার (৩য় তলা)
ভিআইপি রোড, তালতলা, সিলেট।
মোবাইল-০১৭১২-০৩৩৭১৫,০১৭১২-৫৯৩৬৫৩

E-mail: provatbela@gmail.com,

কপিরাইট : দৈনিক প্রভাতবেলা.কম

শিরোনাম :
টাইগারদের ত্রিদেশীয় সিরিজ জয় রাজধানীর বায়ুদূষণ রোধে ব্যর্থতায় হাইকোর্টের ক্ষোভ অপূর্ণই থেকে গেল প্রিয়াঙ্কার ইচ্ছা সহকারী শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা:কবে কোন জেলায় হোটেলে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীর লাশ, মিলছে না অনেক প্রশ্নের উত্তর! সন্তানের জন্য দুধ চুরি : দায় কার? রোযা:সুদৃঢ় ভিত্তির উপর সুচরিত্র গঠনের উপকরণ ছাত্রলীগের হাতে লাঞ্চিত নারী চিকিৎসক রোযার উদ্যেশ্য ও উপকারিতা বেসামাল নাইমুলঃ ক্ষমা প্রার্থনা রোজার উদ্দেশ্য রোযার সমৃদ্ধ ইতিহাস জুটির বিশ্ব রেকর্ড গড়ল ওয়েস্ট ইন্ডিজ গণফোরামের সাধারণ সম্পাদক রেজা কিবরিয়া সোমবার এসএসসি ও সমমানের ফল প্রকাশ আহলান সাহলান মাহে রামাদ্বান মওদুদ আহমদ হাসপাতালে ভর্তি সালাহউদ্দিনের দেশে ফেরা আটকে গেল ‘ফণী’ কখন কোথায় কিভাবে আঘাত হানতে পারে মনির উদ্দিন স্যার আর নেই পটুয়াখালীতে ‘ফণী’ আতঙ্ক: প্রস্তুত প্রশাসন কুষ্টিয়াজুড়ে ‘ফণী’ আতঙ্ক তীর, রূপচাঁদা, পুষ্টির তেল নিম্নমানের: ৫২ ব্র্যান্ডের পণ্যে ভেজাল হালদার খালে হাজার লিটার ফার্নেস ওয়েল, বিপর্যয়ের মুখে জীববৈচিত্র্য শমী’র বিরুদ্ধে ১’শ কোটি টাকার মানহানি মামলা বয়ফ্রেন্ড বিয়ে নাকচ করায় প্রেমিকার আত্মহত্যা! এবার মুখ খুললেন মিলার সাবেক স্বামী জব্দ হতে পারে ড. কামালের ব্যাংক অ্যাকাউন্ট! জামায়াতে কোন প্রভাব পড়বে না- ডা. শফিক মঞ্জুর নেতৃত্বে জামায়াতের সংস্কারপন্থীদের নতুন মঞ্চ! তরুণ প্রজন্মকে রাজনীতি সচেতন হতে হবে : শিক্ষামন্ত্রী ছাত্রদল: ৬০ ভাগ অছাত্র, ৮০ ভাগ অনিয়মিত চলে গেলেন সাংবাদিক মাহফুজউল্লাহ ‘মনসুর ও মোকাব্বির কামালের সাহস পেয়েই সংসদে গিয়েছে’ ‘নতুন আকাঙ্ক্ষার বাংলাদেশ’র ঘোষণা দেবেন মন্জু শফিকুল হক আমকুনী:সিলেটের এক নক্ষত্র ‘উনি বলবেন সাদা, আমি বলছি অফ হোয়াইট- এখানে ঝগড়া করার কিছু নাইতো, বাই’ জয়ে শুরু লাল সবুজের মুমিনুলের বিয়েতে তারার মেলা রায়’র আগেই ফায়সালা সাংবাদিক মাকসুদা লিসার পিতার ইন্তেকাল “যেখানে সিঙ্গারা খেলে চলবে সেখানে অতিরিক্ত কিছু খাওয়ার দরকার নেই” ভারতের ভিসা বাতিল, দেশে ফিরলেন ফেরদৌস নুসরাত হত্যায় সরাসরি জড়িত নারী গ্রেপ্তার ওসিকে রক্ষায় ফেনীর এসপি’র কৌশল নুসরাত হত্যা: দুই আসামির জবানবন্দি, সব জানতেন আ’লীগ নেতা লন্ডনে ডি এম হাই স্কুলের পুনর্মিলনী অনুষ্ঠিত ছাতকের মঈনপুরে শতদল সাহিত্য পরিষদের নববর্ষ উদযাপন দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে নুসরাত হত্যা মামলা বুকে বুক মেলালেন আরিফ-কামরান