" /> উপজেলা ও ইউপি চেয়ারম্যানরা নির্লিপ্ত কেন – দৈনিক প্রভাতবেলা

উপজেলা ও ইউপি চেয়ারম্যানরা নির্লিপ্ত কেন

প্রকাশিত: ৩:৪০ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ১, ২০২০

উপজেলা ও ইউপি চেয়ারম্যানরা নির্লিপ্ত কেন

ইকবাল মাহমুদ : নগরের ৬৭ হাজার হতদরিদ্র পরিবারকে চিহ্নিত করে তাদের জন্য বিশাল খাদ্য ভান্ডার তৈরি করেছেন মেয়র। সরকারী অপ্রতুল বরাদ্দের দিকে না চেয়ে বিত্তবানদের সহায়তায় এ উদ্যোগ বলে জেনেছি। সাম্প্রতিককালে এটি একটি ভালো দৃষ্টান্ত। ঢাকা উত্তরের মেয়রও অনুরুপ উদ্যোগ নিয়ে মানবতার মনে নাড়া দিয়েছেন। কিন্তু নগরের বাইরে শহরতলী এবং গ্রামীণ জনপদে এমন উদ্যোগ খুব সীমিতই দেখা যাচ্ছে। লকডাউনের কারণে কাজ বন্ধ, তাই শ্রমজীবী মানুষেরা চোখে আন্ধার দেখছেন। এখনই খাদ্য সংকটে পড়েছে বহু পরিবার। লকডাউন দীর্ঘস্থায়ী হলে খাদ্যের জন্য রীতিমতো হাহাকার পড়বে। এমন সময় অধিকাংশ উপজেলা ও ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান/ মেম্বাররা নির্লিপ্ত ভূমিকা পালণ করছেন। তারা সরকারী বরাদ্দের অপেক্ষায় বসে আছেন মনে হচ্ছে। আমি সদর উপজেলার বাসিন্দা। কাছ থেকে দেখছি মানুষের হাহাকার। ব্যক্তিগত পর্যায়ে কিছু সাহায্য/ সহযোগিতা হচ্ছে না, তা বলবো না। কিন্তু বিশ্বাস করেন বিচ্ছিন্ন এমন ছোট ছোট উদ্যোগে কূলাবে না। প্রয়োজন বৃহত্তর মানবিক উদ্যোগ। জনপ্রতিনিধিরা এগিয়ে আসুন, উদ্যোগ নিন, মানুষ সাড়া দেবে।
গতকাল রাতে এক সহকর্মীর কাছ থেকে জানলাম তার ইউনিয়নে ৯ টি ওয়ার্ডের জন্য ৯ টি খাদ্যসামগ্রির প্যাকেট এসেছে সরকারি বরাদ্দ। এটি নিয়ে ওই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নাকি খুবই বিব্রত। প্রতি উপজেলা এবং ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানরা উদ্যোগী হয়ে মানবিক তহবিল গঠণে প্রয়াসী হোন। পাড়ায় পাড়ায় হৃদয়বানরাও গড়ে তুলতে পারেন মানবিক তহবিল। নিশ্চয়ই এই আপদকালে মানুষের খাদ্য চাহিদা পূরণে এক নতুন উদাহরণ তৈরি হবে।

ইকবাল মাহমুদ, ব্যুরো প্রধান, ৭১ টেলিভিশন 

  • 49
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    49
    Shares

সর্বশেষ সংবাদ