জিয়ার খেতাব বাতিলের প্রতিবাদে বিএনপির বিক্ষোভ

প্রকাশিত: ৩:২০ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১১, ২০২১

জিয়ার খেতাব বাতিলের প্রতিবাদে বিএনপির বিক্ষোভ

প্রভাতবেলা ডেস্ক:

বিএনপির নেতাকর্মীরা দলটির প্রতিষ্ঠাতা ও সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ‘বীরউত্তম’ খেতাব বাতিলের সিদ্ধান্ত এবং দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানসহ অন্য নেতাকর্মীদের কারাদণ্ডের প্রতিবাদে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বিক্ষোভ করছে।

আজ বৃহস্পতিবার (১১ ফেব্রুয়ারি) সকাল থেকে বিএনপি ও এর সহযোগী বিভিন্ন সংগঠনের নেতাকর্মীরা রাজধানীতে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ সমাবেশ করছেন। আর এই বিক্ষোভ সমাবেশে ফলে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনের সড়কে তীব্র যানজট সৃষ্টি হয়েছে।

সেখানে উপস্থিত রয়েছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীসহ দলটির জ্যেষ্ঠ নেতারা।

উল্লেখ্য, সাবেক রাষ্ট্রপতি ও বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের মুক্তিযুদ্ধে অবদানের খেতাম ‘বীর উত্তম’ বাতিলের সিদ্ধান্ত নিয়েছে জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল। একই সঙ্গে বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত খুনি নূর চৌধুরী, শরিফুল হক ডালিম, মোসলেহ উদ্দিন ও রাশেদ চৌধুরীর রাষ্ট্রীয় খেতাবও বাতিলের সুপারিশ করা হয়।

গেলো মঙ্গলবার (৯ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর স্কাউট ভবনে আয়োজিত দিনব্যাপী জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের (জামুকা) ৭২তম সভায় এসব সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। স্বাধীনতার প্রায় ৫০ বছর পর জিয়াউর রহমানে খেতাব বাতিল হলে তাদের সব রাষ্ট্রীয় সুযোগ-সুবিধাও বাতিল হবে।

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে খেতাবপ্রাপ্ত মুক্তিযোদ্ধাদের তালিকায় নূর চৌধুরীর নামের সঙ্গে ‘বীর বিক্রম’, মোসলেহ উদ্দিনের নামের সঙ্গে ‘বীর প্রতীক’, রাশেদ চৌধুরীর নামের সঙ্গে ‘বীর প্রতীক’ ও শরিফুল হক ডালিমের নামের সঙ্গে ‘বীর উত্তম’ উপাধি ছিল।

সভায় জামুকার সদস্য ও সংসদ সদস্য এবং সাবেক মন্ত্রী শাজাহান খান বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত খুনিদের খেতাব বাতিলের পাশাপাশি জিয়াউর রহমানের রাষ্ট্রীয় খেতাব বাতিলের পক্ষে মতামত দেন। সভায় সবাই এ বিষয়ে একমত হন।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

সর্বশেষ সংবাদ