মজনুর মুখে রোমহর্ষক বর্ণনা

প্রকাশিত: ৪:৪১ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৯, ২০২০

মজনুর মুখে রোমহর্ষক বর্ণনা

প্রভাতবেলা ডেস্ক:

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী ধর্ষণের ঘটনায় সারা দেশ ফুঁসে ওঠার তৃতীয় দিনে র‌্যাবের হাতে ধরা পড়ে অভিযুক্ত মজনু (৩০)। সে ওই ছাত্রীকে কীভাবে পাকড়াও করে এবং যে হিংস্র আচরণ করেছে, সেই রোমহর্ষক বর্ণনা দিয়েছে।

 

 

বুধবার (৮ জানুয়ারি) ভোরে গ্রেপ্তারের পর দুপুরে র‌্যাব মজনুকে মিডিয়ার সামনে আনলে বেরিয়ে আসে তার ধারাবাহিক ধর্ষণের কথা। বৃহস্পতিবার (৯ জানুয়ারি) তাকে আদালতে তোলার আগে আরও কয়েক দফা প্রাথমিক জিজ্ঞাসা করা হয়।

 

 

আসামিকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের বরাতে র‌্যাব ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সূত্র জানায়, মজনু রবিবার (৫ জানুয়ারি) কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়ে বিমানবন্দর সড়ক ধরে হাঁটছিল। এ সময় ওই ছাত্রীও পিঠে ব্যাগ নিয়ে হাঁটছিলেন। আগে থেকে এ এলাকাতেই বহু ধর্ষণের ঘটনা ঘটানোয় তার সাহসও ছিল বেশি। ঢাবির ছাত্রীকে দেখে অনুসরণ করে মজনু। পেছন পেছন হাঁটা শুরু করে। এক পর্যায়ে পেছন থেকে হিংস্র পশুর মতো ওই ছাত্রীর ওপর ঝাঁপিয়ে পড়ে সে। তাকে জাপটে ধরে ঝোপের দিকে টেনে নিয়ে যায়। সঙ্গে সঙ্গে ছাত্রীকে একের পর এক চড়, ঘুষি মেরে দুর্বল করে দেয়। ওই ছাত্রী চেঁচামেচি শুরু করলে আবারও মারধর করা হয় এবং গলা চেপে ধরে একাধিকবার ধর্ষণ করে। এ অবস্থায় ছাত্রী বিপর্যস্ত হয়ে জ্ঞান হারান। জ্ঞান ফিরলে আবারও নির্যাতনের ইচ্ছা ছিল তার। তবে চেতনা ফিরলে সুযোগ বুঝে মজনুর কাছ থেকে পালাতে সক্ষম হন ঢাবি ছাত্রী।

 

 

প্রভাতবেলা/এমএ

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

সর্বশেষ সংবাদ