রায়হান হত্যায় জড়িতদের গ্রেপ্তারের দাবিতে বিক্ষোভ

প্রকাশিত: ৬:২৫ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৬, ২০২০

রায়হান হত্যায় জড়িতদের গ্রেপ্তারের দাবিতে বিক্ষোভ

প্রভাতবেলা ডেস্ক:

সিলেটের বন্দর বাজার ফাঁড়িতে পুলিশি নির্যাতনে রায়হান হত্যার প্রতিবাদে, খুনিদের অবিলম্বে গ্রেপ্তার ও দৃষ্টান্তমুলক শাস্তির দাবি এবং দেশব্যাপী ধর্ষণ, নারী ও শিশু নির্যাতন এবং নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতির প্রতিবাদে নগরীতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে উলামা মাশায়েখ পরিষদ সিলেট।

শুক্রবার (১৬ অক্টোবর) বাদ জুমআ নগরীর সিটি পয়েন্ট থেকে বিক্ষোভ মিছিলটি শুরু হয়ে নগরীর গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্ট প্রদক্ষিণ করে পুনরায় সিটি মার্কেট পয়েন্টে সংক্ষিপ্ত সমাবেশের মধ্য দিয়ে সমাপ্ত হয়।

উলামা মাশায়েখ পরিষদের সহ সভাপতি অধ্যক্ষ মাওলানা লুৎফুর রহমান হুমায়দীর সভাপতিত্বে ও সেক্রেটারি অধ্যক্ষ ড. মাওলানা এএইচএম সোলায়মানের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত মিছিল পরবর্তী সংক্ষিপ্ত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, পরিষদের দায়িত্বশীল মুফতি আলী হায়দার, মাওলানা মুশাহিদ আহমদ, মাওলানা মাহমুদুর রহমান দিলাওয়ার ও মাওলানা মাসুক আহমদ।

এসময় অন্যান্যর মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, মাওলানা আলা উদ্দীন, মাওলানা আব্দুল মুকীত, মাওলানা মুজিবুর রহমান, মাওলানা ওলিউর রহমান সিরাজী, মাওলানা হাবিবুল্লাহ, মাওলানা ফখরুল ইসলাম, মাওলানা মাহবুবুর রহমান সিদ্দিকী, মাওলানা আব্দুল লতিফ, মাওলানা শওকত আলী, মাওলানা আহমদ হোসাইন, মাওলানা শেখ হোসাইন আহমদ, আব্দুল বাসিত ও মাওলানা জুনায়েদ আল হাবীব প্রমুখ।

মিছিল পরবর্তী সমাবেশে বক্তারা বলেন, দেশের আধ্যাত্মিক রাজধানী খ্যাত হযরত শাহজালাল (র.) ও হযরত শাহপরান (র.) সহ ৩৬০ আউলিয়ার স্মৃতি বিজড়িত পুণ্যভূমি সিলেটের মাটিতে এমসি কলেজের মতো শতবর্ষের পুরনো ঐতিহ্যবাহী ছাত্রাবাসে স্বামীর কাছ থেকে স্ত্রীকে ছিনিয়ে নিয়ে পালাক্রমে গণধর্ষণের রেশ কাটতে না কাটতেই পুলিশ ফাঁড়িতে নিরপরাধ রায়হান আহমদকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনা আইয়্যামে জাহেলিয়াতকেও হার মানিয়েছে। কিন্তু এই ঘটনার সপ্তাহ পেরিয়ে গেলেও এখন পর্যন্ত প্রধান আসামি এসআই আকবরসহ অন্যান্য আসামি গ্রেপ্তার না হওয়ায় সিলেটবাসী বিক্ষুব্ধ। এ নিয়ে কোন টালবাহানা বরদাশত করা হবে না। অবিলম্বে রায়হান হত্যায় জড়িতদের গ্রেপ্তার করে দৃষ্টান্তমুলক শাস্তি নিশ্চিত করতে হবে।

বক্তারা আরও বলেন, দেশব্যাপী ধর্ষণ, নারী ও শিশু নির্যাতন মহামারি আকার ধারণ করেছে। আইনের শাসন ও ন্যায় বিচার নিশ্চিত করা না গেলে ধর্ষণ, নারী ও শিশু নির্যাতনের মতো নৃশংসতা রোধ করা সম্ভব নয়। নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতিতে জনজীবন অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে। সরকারকে দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি রোধে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণ করতে হবে।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  • 21
    Shares

সর্বশেষ সংবাদ