চৌহাট্টায় অবৈধ স্ট্যান্ড উচ্ছেদ নিয়ে তুলকালাম, অস্ত্রসহ যুবক আটক

প্রকাশিত: ২:৪০ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০২১

চৌহাট্টায় অবৈধ স্ট্যান্ড উচ্ছেদ নিয়ে তুলকালাম, অস্ত্রসহ যুবক আটক

প্রভাতবেলা প্রতিবেদক:

সিলেট নগরীর চৌহাট্টায় অবৈধ স্ট্যান্ড উচ্ছেদকে কেন্দ্র করে বাঁধা, পাল্টাপাল্টি সংঘর্ষ, সড়কে অগ্নিসংযোগসহ তুলকালাম কান্ড ঘটেছে । এসময় গুলিভর্তি একটি পিস্তুলসহ এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ।

সিসিক সূত্র জানিয়েছে, সিটি মেয়রসহ কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের উপর হামলা চালিয়েছেন মাইক্রোবাস শ্রমিকরা। অপরদিকে পরিবহন শ্রমিকদের দাবি-জোরপূর্বক উচ্ছেদ কার্যক্রম চালিয়েছে সিসিক ।

বুধবার ( ১৭ ফেব্রুয়ারি) দুপুর ১ টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র কর্মকর্তা কর্মচারী নিয়ে সিভিল সার্জন অফিস লাগোয়া মাইক্রোবাসের অবৈধ স্ট্যান্ড উচ্ছেদ করতে চাইলে শ্রমিকরা বাকবিতন্ডা শুরু করেন। এক পর্যায় শ্রমিকরা অতর্কিত হামলা চালান বলে জানান সিলেট সিটি কর্পোরেশন মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী।

এ ঘটনায় বেশ কয়েকটি গাড়ির গ্লাস ভাংচুর করা হয়েছে। এছাড়াও উভয় পক্ষের মধ্যে ২/৩ জন আহত রয়েছেন বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে। এসময় চারপাশে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে।

অপরদিকে শ্রমিকদের দাবি, সিসিক কর্তৃপক্ষ জোরপূর্বক উচ্ছেদের চেষ্টা চালান এবং গাড়ি ভাংচুর করে। এসময় শ্রমিকরা উত্তেজিত হয়ে হামলা চালান।

এসময় ৩ রাউন্ড গুলি ও পিস্তুলসহ এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ। আটক যুবকের নাম ফাহাদ। সে নগরীর পীরমহল্লা এলাকার বাসিন্দা বলে জানিয়েছে পুলিশ।

এদিকে সরেজমিনে প্রত্যক্ষদর্শীদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, সিসিক কর্তৃপক্ষ স্ট্যান্ড উচ্ছেদ করতে চাইলে শ্রমিকরা স্ট্যান্ডের জন্য জায়গা চান। এক পর্যায় শ্রমিকরা জায়গা না দিলে গাড়ি নিয়ে সরবেন না বলে জানালে দেখা দেয় উত্তেজনা। পরে সিসিকের পক্ষ থেকে উচ্ছেদ কাজ শুরু করতে চাইলে শ্রমিকরা ইটপাটকেল নিক্ষেপ ও লাঠিসোঁটা নিয়ে হামলা চালান। এসময় পুলিশ চেষ্টা করে পরিস্থিতি কিছুটা নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করে।

অপরদিকে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনতে পুলিশ ও র‍্যাব সদস্যরা উপস্থিত রয়েছেন।

এদিকে শ্রমিকনেতা আলী আকবর রাজন দাবি করেন, আমরা সরে যেতে রাজি। কিন্তু অন্য কোথাও আমাদের গাড়িগুলো রাখার জন্য কিছু জায়গা দেওয়া হোক।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  • 8
    Shares

সর্বশেষ সংবাদ